মো:আজিজুর বিশ্বাস,নড়াইল প্রতিনিধি:

নড়াইলে ফাতেমা নামে একজনকে হত্যার দায়ে রিপন মোল্যা নামে একজনকে ফাঁসির আদাশে দিয়েছে আদালত।

১৫ নভেম্বর সোমবার সকালে জেলা ও দায়রা জজ আদালতের বিচারক মুন্সী মোঃ মশিয়ার রহমান এ আদেশ দেন।

এসময় আরও ২০ হাজার টাকা জরিমানার আদেশ দেন বিচারক।

দন্ডপ্রাপ্ত আসামী হলেন নড়াইলের নড়াগাতি থানার কালিনগর গ্রামের মোকছেদ মোল্যা(মকু)’র ছেলে।

মামলার বিবরনে জানাগেছে, নড়াইলের নড়াগাতি থানার কালিনগর গ্রামের মোকছেদ ওরফে মকু মোল্যার মেয়ে ফাতেমাকে ২০১৯ সালের ১৯ নভেম্বর বেলা ৩টার দিকে কালিনগর গ্রামের নালিয়া নদীর ঘাটে কাপড় পরিষ্কার কতে যায়।

আসামী রিপন মোল্যা পেছন থেকে ধাক্কা মেরে পানিতে ফেলে চুবিয়ে বাাঁশের লাঠি ও টেংগারী দিয়ে যখম করে হত্যা করে। পরে লাশ পানির নিচে কাদায় পুতে রাখে। আসামী রিপন মোল্যার ছেলে রাশেদ মোল্যা বিষয়টি দেখতে পায়। বিকেলে ফাতেমাকে অনেক খোঁজাখুজির পর না পেয়ে এক পর্যায়ে রাশেদ মোল্যার বর্ণনা অনুযায়ী নদীর ঘাট থেকে লাশ উদ্ধার করা হয়।

পুলিশ আসামী রিপন মোল্যাকে আটক করে জিজ্ঞাসাবাদে হত্যার করা শিকার করে। এ ঘটনায় ফাতেমার পিতা মোকছেদ ওরফে মকু মোল্যা বাদী হয়ে নড়াগাতি থানায় মামলা দায়ের করেন।

Leave a Reply