রাশিদুল ইসলাম,গুরুদাসপুর(নাটোর) প্রতিনিধিঃ

নাটোরের গুরুদাসপুরে এক অসহায় কৃষকের বাড়ি ঘর ভাঙ্গচুর করার অভিযোগ উঠেছে স্থানীয় ইউপি সদস্য ও তার বড় ভাইয়ের বিরুদ্ধে।

ভুক্তভোগী ওই কৃষকের নাম শাহাদাৎ হোসেন।সে উপজেলার দড়িহাসমারি গ্রামের আফসার হোসেনের ছেলে।

আজ বুধবার (২২ সেপ্টেম্বর)ভোরে উপজেলার মশিন্দা ইউনিয়নের দরিহাসমারি গ্রামে এই ঘটনা ঘটে।

অভিযোগ সূত্রে জানাযায়, দড়িহাসমারি গ্রামের আফসার হোসেনের ছেলে শাহাদৎ হোসেনের দলিলকৃত জায়গা দীর্ঘদিন যাবৎ জোড় পুর্বক দখল করে আসছিলো ৭নং ওয়ার্ডের ইউপি সদস্য আব্দুর রউফ এর বড় ভাই আব্দুল কুদ্দুস ও তার স্বজনরা। গত এক বছর পুর্বে শালিশি বৈঠকে জমি ফিরে পান শাহাদৎ হোসেন। ফিরে পাওয়া জমিতে বৃদ্ধ বাবা মায়ের থাকার জন্য ঘর বাড়ি তৈরি করে দেন তিনি।

পূর্ব শত্রুতার জেরে ২২ সেপ্টেম্বর ভোরে ইউপি সদস্য আব্দুর রউফের নেতৃত্বে আব্দুল কুদ্দুস, হামিদ, রেজা, কপি, লিটন, হাসিনুরসহ প্রায় ২৫ জন লোক ধারালো অস্ত্র নিয়ে তার বাড়ি ঘর ভাঙ্গচুর করে পুকুরের পানিতে ফেলে দেয় এবং কৃষকের বৃদ্ধ বাবাকে পানির মধ্যে ফেলে দিয়ে তার বাড়িতে থাকা লোকজনকে মারধর করে চলে যায়।

কৃষক শাহাদৎ হোসেন জানান, তিনি অসহায় হতদরিদ্র মানুষ। দিনমজুরী করে সংসার পরিচালনা করেন। তার বাবাকে হত্যা চেষ্টা ও বাড়ি ঘর ভাঙচুরের সাথে জড়িত সকলের বিরুদ্ধে আইনগত ব্যবস্থা গ্রহণের দাবি জানান। প্রায় লক্ষাধিক টাকার ক্ষতি সাধন হয়েছে বলেও তিনি জানান।

অভিযুক্ত ইউপি সদস্য আব্দুর রউফ জানান তিনি এ বিষয়ে কিছুই জানেন না। তার ভাই আব্দুল কুদ্দুস বলেন তাদের জায়গায় ঘর ছিলো তাই ভেঙ্গে ফেলেছেন।

এ বিষয়ে গুরুদাসপুর থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) মো.আব্দুল মতিন জানান, অভিযোগ পেলে প্রয়োজনীয় পদক্ষেপ গ্রহণ করা হবে।

Leave a Reply