চুনারুঘাট প্রতিনিধিঃ
চুনারুঘাট উপজেলা নালুয়া চা বাগানের ছায়াবৃক্ষ দিন দিন কেটে নিচ্ছে এলাকার চিহ্নিত কিছু গাছ চোরেরা।এ ব্যাপারে কয়েকদিন পূর্বে চুনারুঘাট থানা একটি অভিযোগ পত্র দেন নালুয়া চা বাগান কর্তৃপক্ষ।২৫ জানুয়ারী আহম্মদাবাদ ইউপি চেয়ারম্যান সনজু চৌধুরীর সহায়তায় চুনারুঘাট থানা পুলিশ ঠেলাগাড়িসহ একটি গাছ উপজেলার গনকিরপাড় গ্রামের আব্দুল হেকিম ওরপে মার্কা মিয়ার বাড়ি থেকে উদ্ধার করেন।
উদ্ধার গাছ ও ঠেলাগাড়ি স্থানীয় ইউপি চেয়ারম্যান সনজু চৌধুরী র জিম্মায় রাখা হয়েছে।
চেয়ারম্যান ঠেলাগাড়ি ও গাছ আটকের বিষয়টি নিশ্চিত করে বলেন,কোনভাবেই চোরদেরকে ছাড় দেয়া হবে না। কারণ এখন আর চুরি চামারি করার যুগ নেই। মানুষ এখন শিক্ষিত নম্র ও ভদ্র এবং ডিজিটাল যুগে চুরির মতো জঘন্য অপরাধ কোনোভাবেই মেনে নেয়া যায়না।

এলাকাবাসীর বক্তব্যে জানা যায়,উপজেলার গনকিরপাড় গ্রামের আব্দুল হেকিম মিয়ার ছেলে আব্দুল বারীক (৫০) আব্দুল আওয়াল (৩৫) আব্দুর রউফ (৪৫)রফিক মিয়ার পুত্র কাজল মিয়া (৪২) ও সহযোগিতায় আরো ১৬জন চোর প্রতিনিয়ত চা বাগানের গাছ চুরি করে থাকেন।তাদের কে চা বাগানের নৈশ প্রহরি তমিজউদ্দন সহযোগিতা করার অভিযোগ রয়েছে।
পরপর কয়েকটি চুরির ঘটনা সংঘটিত হওয়ার পর ব্যাপক সাড়া ফেলে এবং বিষয়টি নিয়ে থানা পুলিশ ও স্থানীয় জনপ্রতিনিধিরা উদ্বেগ প্রকাশ করেন।

পুলিশ ব্যাপক তল্লাশি করে ঠেলা সহ গাছটি উদ্ধার করে। পুলিশ চোরদের ধরতে সাঁড়াশি অভিযান চালাচ্ছে বলে জানা যায়।পুলিশের ভয়ে চোররা এখন পালিয়ে বেড়াচ্ছে। চুনারুঘাট থানার ওসি মোহাম্মদ আলী আশরাফ জানান, বাগান কর্তৃপক্ষের অভিযোগের ভিত্তিতে দায়িত্বরত পুলিশ ব্যাপক অভিযান চালিয়ে ঠেলা গাড়িসহ গাছটি আটক করে। তদন্তে১৬ জনের নাম তারা পেয়েছেন। তাদের প্রত্যেকের বিরুদ্ধে আইনানুগ ব্যবস্থা নেয়া হবে। কোনভাবেই তাদেরকে ছাড় দেয়া হবে না।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *