মোঃ আরিফুল ইসলাম ঝিনাইগাতী (শেরপুর) প্রতিনিধি:

শেরপুর জেলার ঝিনাইগাতীতে নিখোঁজের ১৮ দিন পর পাইকুড়া এআরপি উচ্চ বিদ্যালয়ের দশম শ্রেণী পড়ুয়া ছাত্র রুবেল মিয়া (১৭) এর লাশ উদ্ধার করেছে থানা পুলিশ। ৬ সেপ্টেম্বর সোমবার দুপুরে পুলিশ ওই লাশ উদ্ধার করে। নিহত রুবেল মিয়া উপজেলার ধানশাইল ইউনিয়নের কান্দুলী গ্রামের মোঃ নুরুল হকের ছেলে। পুলিশ ও নিহত পরিবার সূত্রে জানা গেছে, ১৯ আগস্ট বৃহস্পতিবার সকাল সাড়ে ১০টার দিকে বাড়ীতে কাউকে না বলে বাড়ী থেকে বের হয়ে যায়। মোবাইল ফোনে অনেক চেষ্টা করেও তার সাথে যোগাযোগ করে না পাওয়ায় তাকে অনেক খোঁজাখুজি করা হয়। অবশেষে না পেয়ে তার পিতা- মোঃ নুরুল হক গত ২৫ আগস্ট বুধবার সন্ধ্যা সাড়ে ৬ টার সময় ঝিনাইগাতী থানায় একটি হারানো জিডি করেন। ঝিনাইগাতী থানার জিডি নং- ১০৩২। আজ ৬ সেপ্টেম্বর সোমবার সকাল সাড়ে ৯টার দিকে ঝিনাইগাতী থানাধীন পাইকুড়া বাজার থেকে বালিয়াচন্ডি গামী কাঁচা রাস্তার পূর্ব পার্শ্বে জনৈক শাহাজ উদ্দিন মাষ্টার এর কচুরিপানার ডোবায় এলাকার লোকজন মাছ ধরতে গিয়ে সেখানে একটি গলিত লাশ দেখতে পায়। এলাকার লোকজন থানায় সংবাদ দিলে ঝিনাইগাতী থানা পুলিশ সেখানে গিয়ে মাথা বিহীন একটি গলিত লাশ উদ্ধার করে। পরে রুবেলের পরিবারের আত্মীয়স্বজন লাশ সনাক্ত করে জানান লাশটি রুবেল মিয়ার। পুলিশ লাশ উদ্ধার করে লাশের সুরতহাল শেষে শেরপুর সদর হাসপাতাল মর্গে প্রেরণ করেছে। ঝিনাইগাতী থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) মোহাম্মদ ফায়েজুর রহমান বলেন, ময়নাতদন্তের প্রতিবেদন পেলে মৃত্যুর কারণ জানা যাবে। তবে কেউ তাকে হত্যা করে বিলে ফেলে গেছে বলে প্রাথমিকভাবে ধারণা করা হচ্ছে। এ ঘটনায় মামলার প্রস্তুতি চলছে।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *