মিরু হাসান বাপ্পী
আদমদিঘী (বগুড়া) প্রতিনিধিঃ

বগুড়া শহরের ঠনঠনিয়ার মোহাম্মদ আলী হাসপাতাল মাঠে তাঁত বস্ত্র মেলায় গণ্ডগোলে এমরান (১৮) নামে এক তরুণকে ছুরিকাঘাত করা হয়েছে। মঙ্গলবার (২৩ মার্চ) সন্ধ্যার দিকে এ ঘটনা ঘটে।

এমরানের বাড়ি বগুড়া সদরের চারমাথা গোদারপাড়া এলাকায়। মেলায় গণ্ডগোলের ঘটনা নিশ্চিত করেছেন বনানী ফাঁড়ির সহকারী উপপরিদর্শক (এএসআই) আব্দুর রাজ্জাক। তিনি জানান, ছুরিকাঘাতের খবর পেয়ে সন্ধ্যা আটটার দিকে তাঁত বস্ত্র মেলায় যাই।

স্থানীয়দের বরাতে এএসআই রাজ্জাক বলেন, চারমাথা এলাকা থেকে কয়েকজন তরুণ মেলায় বেড়াতে আসেন। তাদের সঙ্গে একজনের বোনও ছিল। মেলায় ঘোরাফেরার সময় আরেক দর্শনার্থী ওই মেয়েকে কটুকথা বলেন। এ নিয়ে মেয়েটির ভাইয়ের সাথে বাকবিতণ্ডা শুরু হয়।

এ সময় উত্যক্তকারীকে পিছন থেকে চাকু মারা হয় বলে জানিয়েছেন স্থানীয়রা। এরপর উভয় পক্ষই মেলা থেকে সরে পড়েন।

এএসআই রাজ্জাক বলেন, গণ্ডগোলের খবর পেয়েই মেলায় আসি। তবে ততক্ষণে সবাই চলে গেছেন। মোহাম্মদ আলীতে আহত তরুণের খোঁজ করি। কিন্তু তিনি সেখানে ভর্তি হননি। সম্ভবত শহীদ জিয়াউর রহমান মেডিকেল (শজিমেক) হাসপাতালে গেছেন।

মেডিকেল ফাঁড়ির উপপরিদর্শক আব্দুল আজিজ মণ্ডলের সঙ্গে যোগাযোগ করলে জানান, এমরান নামে এক তরুণ ছুরিকাহত অবস্থায় ভর্তি হয়েছেন। তার হাতে ও নিতম্বে ছুরিকাঘাত করা হয়েছে। প্রাথমিক জিজ্ঞাসাবাদে তিনি জানিয়েছেন তাঁত বস্ত্র মেলায় কেউ তাকে চাকু মেরেছে। কিন্তু এমরান কাউকে চিনতে পারেননি।।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *