মিরু হাসান বাপ্পী
বগুড়া প্রতিনিধি:

বগুড়ায় চাকুরীর প্রলোভনে হোটেলে ডেকে নিয়ে ধর্ষণ চেষ্টার মামলায় মোঃ মামুন (৪৮) নামের এক বেকারী ম্যানেজারকে গ্রেফতার করেছে সদর থানা পুলিশ।সোমবার সকালে সুত্রাপুর থেকে তাকে গ্রেফতার করা হয়। গ্রেফতারকৃত মামুন বগুড়া শহরের সূত্রাপুর (গোহাইল রোড, ভেলু পট্টির) মৃত আঃ রহমানের ছেলে। তিনি বগুড়ার স্থানীয় একটি বেকারীতে ম্যানেজার হিসেবে কর্মরত। বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন বগুড়া সদর থানার এস আই বেদার উদ্দিন।

মামলার এজাহার ও বাদী রাখি (ছদ্দনাম) এর সাথে কথা বলে জানা যায়, আসামী মামুন বাদীর পূর্ব পরিচিত। গত ১৩ আগস্ট রাখি তার স্বামীর সঙ্গে অভিমান করে মায়ের বাড়ি চলে যায়। এই সুযোগে আসামী মামুন ১৪ আগস্ট রাখির বাবার বাড়ীতে তার স্বামীর সম্পর্কে বিভিন্ন খারাপ মন্তব্য করে রাখিকে স্থানীয় একটি বেকারীতে চাকুরীর দেওয়ার কথা বলে আসামী মামুন চলে আসে এবং ১৬ আগস্ট বিকালে রাখির মায়ের মুঠোফোনে ফোন করে ২০০ টাকা পাঠিয়ে দেয় এবং বলে বগুড়া শহরে চলে আসো আগামীকাল তোমার চাকুরী হবে। পরের দিন মুঠোফোনে বগুড়া সদর থানাধীন মাটিডালী বিমান মোড়ে আসতে বলে। রাখি তার কথা বিশ্বাস করে মাটিডালী বিমান মোড়ে পৌছায়। এরপর রাখিকে মামুন মোটর সাইকেল তার স্ত্রী অসুস্থতার কথা বলে এবং তার সঙ্গে দেখা করানোর জন্য বেকারীতে না নিয়ে স্থানীয় একটি আবাসিক হোটেলে নিয়ে যায়। সেখানে রাখিকে কু প্রস্তাব দিয়ে ধর্ষণের চেষ্টা ও মারধর করে। এসময় চিৎকারে হোটেলের বয় দরজায় নক করলে তাকে ছেড়ে দেয়। পরে হাসপাতালে চিকিৎসা নেওয়ার পর সুস্থ হয়ে থানায় মামুনের নামে অভিযোগ করেন।

বগুড়া সদর থানার অফিসার ইনচার্জ সেলিম রেজা জানান, গ্রেফতারকৃত আসামীকে নারী ও শিশু নির্যাতন দমন আইনে মামলায় আদালতে প্রেরণ করা হয়েছে।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *