শুভ চক্রবর্ত্তী, নবীনগর(ব্রাহ্মণবাড়িয়া) প্রতিনিধি :

ব্রাহ্মণবাড়িয়া জেলার নবীনগর উপজেলার জিনোদপুর ইউনিয়নের বাঙ্গরা গ্রামে সোমবার(৫ এপ্রিল) সকাল ৮টায় মোঃ ফরহাদ(২০) নামের এক শুটকি ব্যবসায়ীকে লাথি দিয়ে হত্যার করার ঘটনা ঘটেছে এবং ঘটনার ৬ ঘন্টার মধ্যেই খুনি গ্রেপ্তার।

এলাকাবাসী ও প্রত্যক্ষদর্শীরা জানায়, দীর্ঘ দিন ধরে শুটকির ব্যবসা করে আসা,বাঙ্গরা গ্রামের মধু মিয়ার ছেলে মোঃ ফরহাদ, কুমিল্লা জেলার কতুয়ালি থানার মধ্যম আশরাফপুর ইউনিয়নের হালুয়াপাড়া গ্রামের দুলাল মিয়ার ছেলে সোহেল মিয়ার সাথে বেশ কয়েকদিন আগে যৌথভাবে তরমুজ-বাঙ্গির ব্যবসা শুরু করে। কিছুদিন ধরে দুইজনের মাঝে টাকা নিয়ে ঝামেলা চলছিল। এরই মাঝে সোমবার সকালে তরমুজ-বাঙ্গির আড়তের চাবি নিয়ে দুজনের মধ্যে বাকবিতণ্ডা ও হাতাহাতি শুরু হয়। এর এক পর্যায়ে সোহেল, ফরহাদের নিম্নাঙ্গে লাথি দিলে সে অজ্ঞান হয়ে যায়। স্থানীয়রা ফরহাদকে নবীনগর সরকারি হাসপাতালে নিয়ে আসলে কর্মরত চিকিৎসাক তাকে মৃত ঘোষণা করে।

এ দিকে খুনের ঘটনার খবর পেয়ে খুনিকে গ্রেপ্তারের অভিযান চালায় পুলিশ। দুপুর ২টায় নবীগর উপজেলার বিটঘর ইউনিয়ন দিয়ে পালিয়ে যাওয়ার পথে শিবপুর অস্থায়ী পুলিশ ফাঁড়ির ইনচার্জ এস আই নজরুল ইসলামের নেতৃত্বাধীন পুলিশ বাহিনীর কাছে ধরা পড়ে খুনি সোহেল মিয়া। এস আই নজরুল ইসলাম জানান এ ঘটনায় মামলার প্রস্তুতি চলছে।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *