সুজন কুমার,নিজস্ব প্রতিনিধিঃ
নাটোরের বড়াইগ্রামে ১৫ বছরের শিশু ভ্যান চালককে ভুলিয়ে নিয়ে গিয়ে ভ্যান ছিনিয়ে নিয়েছে অজ্ঞাত দুই ব্যাক্তি। ১০ ই এপ্রিল শনিবার সন্ধ্যায় জোনাইল ইউনিয়নের মানইর মেরীভিটা গ্রামের মোঃ তাউহিদ হোসেন(১৫) এর সাথে এই ঘটনা ঘটে। তাউহিদ জোনাইলের নূরআলী ইটভাটায় কর্মরত মোঃ রহিম প্রামানিক এর ছেলে। বর্তমানে সে জোনাইল ও আর খান মেমোরিয়াল হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় রয়েছে।

ভুক্তভোগী তাউহিদ হোসেন জানায়,জোনাইল পাগলাবাজার ব্রিজ থেকে জোনাইল কলেজে যাওয়ার কথা বলে আমাকে নিয়ে যায় একটি লোক। কলেজে পৌছালে ঐ লোক বলে আমি খাদ্য ব্যবসায়ী। ব্যবসার টাকা নিতে বনপাড়ায় যাবো। এই বলে ৩০০ টাকা ভাড়ায় রিজার্ভ করে আমাকে বনপাড়া নিয়ে যায়। বনপাড়া পার হয়ে টাকা দেওয়ার কথা বলে একটি মোটরসাইকেলে করে দুইজন মানুষ আমাকে জনশূন্য একটি জায়গায় নিয়ে যায় এবং একটি স্পিড এর বোতলে কি যেনো মিশিয়ে আমাকে খেতে বলে। আমি খেতে না চাইলে আমাকে জোর করে মুখ চেপে ধরে খাইয়ে দেয় এবং আমাকে মারধর করে একটি ঝোপে ফেলে রেখে চলে যায়। এরপর আমি আর কিছুই জানি না। পরে পুলিশ আমাকে থানায় নিয়ে গিয়ে প্রশ্ন জিজ্ঞাসা করে এবং আমাকে এই হাসপাতালে ভর্তি করে।

বড়াইগ্রাম থানার ওসি মোঃ আনোয়ারুল ইসলাম ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করে জানায়,বিষয়টি সম্পর্কে আমরা অবগত। আমরা ভ্যান উদ্ধারের নিকটবর্তী। আশা করি খুব দ্রুত ভ্যান উদ্ধার করে মালিকের হাতে তুলে দিতে পারবো।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *