রামগড় প্রতিনিধিঃ

খাগড়াছড়ি পার্বত্য জেলার রামগড় উপজেলার ২নং পাতাছড়া ইউনিয়নের অধিনস্থ নাকাপার রসূলপুর গ্রামে কুপ্রস্তাবে সাড়া না দেওয়াতে আয়শা খাতুন (২০)নামে এক গৃহবধূ’র ওপর হামলার অভিযোগ উঠেছে নাকাপার (লতিফ মেম্বারের ভাতিজা )ফজর আলীর ছেলে ইয়াসিনের বিরুদ্ধে। আহত গৃহবধূ বর্তমানে রামগড় হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় রয়েছেন।

ভিকটিম আয়শা খাতুন অভিযোগ করে বলেন আমাদের প্রতিবেশী নাকাপার রসূলপুর গ্রামের স্থানীয় বাসিন্দা ফজর আলীর ছেলে মোহাম্মদ ইয়াসিন, দীর্ঘদিন যাবত আমাকে আজেবাজে কথা বলে,সব সময় সে আমাকে বিরক্ত করে আসছে,গত (বৃহস্পতিবার) ২২ এপ্রিল বিকেলে আমি লারকি আনতে বাড়ির পাশের বাগানে গেলে ইয়াসিন আমাকে কুপ্রস্তাব দেন,এতে আমি উত্তেজিত হয়ে কথা বললে সে আমাকে মারধর করে এবং জোঁরপূর্বক শ্লীলতাহানির চেষ্টা করে,এই সময় আমি দুরাইয়া বাড়ি চলে আসি।পরে সন্ধ্যা ইয়াসিন,আকাশ,নাজমুল আমাদের বাড়িতে এসে ছাগল নাকি ওদের বাগানের গাছ খেয়েছে এই অযুহাতে আবার আমার ওপর হামলা চালিয়েছে,এতে আমার মাথায় প্রচণ্ড আঘাত লাগে। এই সময় ওরা আমার স্বামী পুশিদার হোসেনকেও মারধর করে।এই বিষয়ে কাউকে কিছু বললে ইয়াসিন আমাকে মেরে পেলারও হুমকি দেন।

ভিকটিম এর মা হালিমা খাতূন (৫০) বলেন ইয়াসিন নাকাপার লতিফ মেম্বারের ভাতিজা হয়।সে দীর্ঘদিন আমার মেয়েকে কুপ্রস্তাব দিয়ে আসছে,মেয়ে আমাকে প্রায় সময় বলতো কিন্তু আমি বিশ্বাস করতামনা,আজ যখন মেয়ে লারকি আনতে বাগানে যায়, তখন ইয়াসিন জোঁরপুর্বক আমার মেয়েকে শ্লীলতাহানির চেষ্টা করে ,এতে মেয়ে চিৎকার করলে ইয়াসিন তাকে মারধর করে।এবিষয় আমি বিস্তারিত জানার পর ৩নং ওয়ার্ড মেম্বার আব্দুল লতিফের কাছে বিচারের জন্য গেলে মেম্বার উত্তেজিত হয়ে বলেন মারছে কি হয়েছে।ডাক্তারের কাছে গিয়ে চিকিৎসা করো ২ সপ্তাহ পরে আমার কাছে আসবি তখন বিচার করবো।মেম্বারের কাছে বিচার না পেয়ে আনসার ক‍্যাম্পে গেলে ওরা থানায় যাওয়ার পরামর্শ দেন,পরে এ ঘটনায় রামগড় থানায় একটি লিখিত অভিযোগ দেওয়া হয়েছে।

ভিকটিম এর দুলাভাই ইমাম হোসেন জানান লতিফ মেম্বার এবং তার ভাই ভাতিজাতের অত্যাচারে এলাকার মানুষ অতিষ্ট ওরা খুব খারাপ লোক।

রামগড় উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্স এর উপসহকারী মেডিকেল অফিসার ডাঃ হাসান মাহমুদ বলেন ভিকটিমকে যখন হাসপাতালে নিয়ে আসে তখন তার মাথায় কোপালে আঘাতের চিত্র দেখা যায়, হাসপাতালে ভর্তি রেখেই তার চিকিৎসা চালানো হচ্চে।

এবিষয়ে রামগড় থানার ওসি (তদন্ত )রাজিব চন্দ্র বলেন ভিকটিমের অভিযোগের ভিত্তিতে তদন্ত সাপেক্ষে আইনি ব‍্যবস্থা গ্রহন করা হবে।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *