সোহেল হোসেন লক্ষ্মীপুর জেলা প্রতিনিধি:
লক্ষ্মীপুর সদর উপজেলার ভবানীগঞ্জ ইউনিয়নে লক্ষ্মীপুর-রামগতি সড়কের দুইপাশে বসবাসকারী নদীভাঙ্গা ভূমিহীন প্রায় ২ হাজার মানুষের জন্য কবরস্থান ও মসজিদের ফলক উন্মোচন ও মতবিনিময় অনুষ্ঠান হয়েছে।
মঙ্গলবার দুপুরে কবরস্থান ও মসজিদের ফলক উন্মোচন করেন পুলিশের মহাপরিদর্শক (আইজিপি) ড.বেনজীর আহমেদ। এর আগে পুলিশের উদ্যোগে জমি কিনে রেজিষ্ট্রি করে। এরপর থেকে পুরো জমিতে সীমানা প্রাচীর তুলে কবরস্থান ও মসজিদ নির্মাণ করা হয়। সেখানে গভীর নলকূপ, মরদেহ ধোঁয়ারঘর ও বাথরুম রয়েছে। প্রধান সড়ক থেকে কবরে যাওয়ার জন্য রাস্তাও সংস্কার করা হয়েছে। আজ আনুষ্ঠানিকভাবে ভূমিহীনদের কবরের জমির দলিল বুঝিয়ে দেয়া হয়।
জেলা পুলিশ সুপার (এসপি) ড. এএইচএম কামরুজ্জামানের সভাপতিত্বে এতে বিশেষ অথিতি ছিলেন পুলিশ নারী কল্যাণ সমিতির (পুনাক) সভানেত্রী জীশান মির্জা।
এসময় উপস্থিত ছিলেন চট্টগ্রাম রেঞ্জের উপ-মহাপরিদর্শক (ডিআইজি) আনোয়ার হোসেন ও অতিরিক্ত ডিআইজি মো. সাইফুল ইসলাম প্রমুখ।
বক্তব্যে লক্ষ্মীপুর জেলা পুলিশ সুপার (এসপি) ড.এএইচএম কামরুজ্জামান বলেন, সদর উপজেলার ভবানীগঞ্জ ইউনিয়নের পশ্চিম চরমনসা প্রামে জমি কিনে কবরস্থানটি করা হয়েছে। সেখানে ১০ হাজার মানুষকে কবর দেওয়ার ব্যবস্থা রয়েছে। মানবিক কারণে আইজিপির উদ্যোগে জেলা পুলিশ কাজটি বাস্তবায়ন করেছেন।

Leave a Reply