এস ইসলাম, স্টাফ রিপোর্টার:

লালপুরে শারমিন (২২) নামের এক গৃহবধূর মরদেহ উদ্ধার করেছে লালপুর থানা পুলিশ।

রবিবার ২৪ জানুয়ারী লালপুর থানা পুলিশ মরদেহ উদ্ধার করে নাটোর মর্গে পাঠিয়েছে। হত্যার অভিযোগে স্বামী সাদ্দামকে আটক করেছে লালপুর থানা পুলিশ।

অভিযোগ সূত্রে জানা যায়, শনিবার গভীর রাতে স্বামী সাদ্দাম হোসেন ও পরিবারের লোকজন মিলে শারমিনকে নির্যাতন করে হত্যা করেছে বলে অভিযোগ করেছে গৃহবধূর ভাই রিপন আলী।

পারিবারিক সূত্রে জানা যায় দুই বছর আগে চাঁপাইনবাবগঞ্জ জেলার শিবগঞ্জ উপজেলার লহমারী সাহেব গ্রামের তহরুল ইসলামের মেয়ে শারমিনের সাথে নাটোর জেলার লালপুর উপজেলার মাঝগ্রামের তৈজাল প্রামানিকের ছেলে সাদ্দামের সাথে বিয়ে হয়। বিয়ের পর থেকে স্বামী ও স্বামীর পরিবারের লোকজন যৌতুকের জন্য গৃহবধুকে শারীরিক ও মানসিক নির্যাতন করে আসছিল। এরই ধারাবাহিকতায় গত রবিবার ২৪ জানুয়ারি রাতে তাকে নির্যাতন করে হত্যা করে।

এব্যাপারে নিহতের ভাই রিপন বাদি হয়ে লালপুর থানায় হত্যা মামলা দায়ের করেছে।

লালপুর থানার ওসি সেলিম রেজা ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করে বলেন অভিযোগ পেয়েছি। তদন্ত করে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *