কাকন সরকার:
আজ বুধবার ২৪ নভেম্বর বার্ষিক পরিদর্শনের অংশ হিসেবে সকাল ১১.০০ ঘটিকায় শেরপুর সদর থানা ও সদর থানাধীন শহর পুলিশ ফাঁড়ি পরিদর্শন করেন জনাব সৈয়দ হারুন অর রশিদ , পুলিশ সুপার (প্রশাসন ও অর্থ ) রেঞ্জ ডিআইজি’র কার্যালয়, ময়মনসিংহ ।
সদর থানায় পৌঁছলে পুলিশ সুপার, জনাব সৈয়দ হারুন অর রশিদ মহোদয়-কে ফুলেল শুভেচ্ছা জানান পুলিশ সুপার, শেরপুর জনাব মোঃ হাসান নাহিদ চৌধুরী মহোদয় ও সদর থানার অফিসার ইনচার্জ জনাব মনসুর আহমেদ। পরিদর্শনের শুরুতেই জেলা পুলিশের একটি চৌকস দল পুলিশ সুপার মহোদয়-কে “গার্ড অব অনার” প্রদান করেন।

পুলিশ সুপার জনাব সৈয়দ হারুন অর রশিদ মহোদয় সদর থানার অফিসার ফোর্সদের দৈনন্দিন কার্যক্রম, গুরুত্বপূর্ন রেজিস্ট্রারপত্র পর্যালোচনা, মালখানা, হাজত খানা, নারী, শিশু, বয়স্ক ও প্রতিবন্ধী সার্ভিস ডেস্ক, সরকারী অস্ত্রগুলি সরেজমিনে পরিদর্শন করেন। তিনি থানায় আগত সেবা প্রত্যাশীদের গুণগত সেবার মান বৃদ্ধির লক্ষ্যে মূল্যবান দিকনির্দেশনা প্রদান করেন।

পরে সদর থানাধীন শহর পুলিশ ফাঁড়ি বার্ষিক পরিদর্শনের অংশ হিসেবে পরিদর্শনকালে পুলিশ সুপার মহোদয়-কে ফুলেল শুভেচছা জানান ইনচার্জ শহর পুলিশ ফাঁড়ি জনাব মনিরুল আলম ভুঁইয়া। পরে পুলিশ সুপার মহোদয় অফিসার ফোর্সদের দৈনন্দিন কার্যক্রম, গুরুত্বপূর্ন রেজিস্ট্রারপত্র পর্যালোচনা করে, শহর পুলিশ ফাঁড়িতে কর্মরত সকল অফিসার ও ফোর্সের খোঁজখবর নেন এবং সকলকে পেশাদারিত্বের সাথে দৈনন্দিন কাজ করার আহ্বান জানান।

পরবর্তীতে শেরপুর পুলিশ লাইনস্ ড্রিল শেডে জেলা পুলিশের আয়োজনে ইন-সার্ভিস ট্রেনিং সেন্টার, শেরপুর এর পরিচালনায় চলমান ০৬(ছয়) দিনব্যাপী নায়েক ও কনস্টেবলদের “দক্ষতা উন্নয়ন কোর্স” ৩য় ব্যাচের প্রশিক্ষণ কার্যক্রম, ইন-সার্ভিস ট্রেনিং সেন্টার, শেরপুরের চলমান উন্নয়ন কার্যক্রম, পুলিশ লাইনস্ মেস, রান্না ঘর ও খাবারের মান পরিদর্শন করেন।

এ সময় অন্যান্যদের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন কমান্ড্যান্ট (পুলিশ সুপার) ইন-সার্ভিস ট্রেনিং সেন্টার শেরপুর জনাব আব্দুল্লাহ আল মাহমুদ, অতিরিক্ত পুলিশ সুপার (প্রশাসন) জনাব মোহাম্মদ আবু বকর সিদ্দিক, অতিরিক্ত পুলিশ সুপার (সদর সার্কেল) জনাব মোহাম্মদ হান্নান মিয়া, টিআই-১ জাহাঙ্গীর আলম, আরআই জনাব বিরাজ চন্দ্র সরকার, পুলিশ পরিদর্শক (তদন্ত) জনাব বন্দে আলী মিয়া-সহ অন্যান্য অফিসার ও ফোর্সবৃন্দ।

Leave a Reply