মোঃ সাজিদ হাসান শান্ত
শ্রীবর্দি(শেরপুর)প্রতিনিধি:
শেরপুরের শ্রীবরদীতে গৃহবধূকে ধর্ষণের মামলায় এজাহার ভূক্ত আসামী ইউ.পি সদস্য রফিকুল ইসলাম আন্ডাকে গ্রেফতার করেছে পুলিশ। ১৫ জুলাই বৃহস্পতিবার দুপুরে পুলিশ তাকে পৌরসভার তাতিহাটী এলাকা থেকে গ্রেফতার করে। রফিকুল ইসলাম ওরফে আন্ডা উপজেলার তাতিহাটী ইউনিয়নের ৬নং ওয়ার্ডের ইউ.পি সদস্য ও বকচর পশ্চিমপাড়া গ্রামের মৃত আ: জলিলের ছেলে।

পুলিশ ও মামলা সূত্রে জানা গেছে, নির্যাতনের শিকার ওই গৃহবধূর পিতা ঈদে গরু বিক্রির করার জন্য ঢাকার উদ্দেশ্যে রওনা হয়। এ সুযোগে ১৪ জুলাই বুধবার রাত অনুমান ০২টার দিকে মনিমুক্তা ওরফে মনির ওই গৃহবধূর বাড়িতে এসে বসত ঘরের দরজার বান কেটে ঘরে প্রবেশ করে। পরে ঘুমন্ত অবস্থায় গৃহবধূর মুখ গামছা বেধে জোর পূর্বক ধর্ষণ করে। একপর্যায়ে গৃহবধূ চিৎকারে দিলে এলাকাবাসী এসে মনিমুক্ত ওরফে মনিরকে আটক করে। এ ঘটনায় গৃহবধূ নিজেই বাদী শ্রীবরদী থানায় নারী ও শিশু নির্যাতন দমন আইনে মামলা করেন।

এ ব্যাপারে শ্রীবরদী থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) বিপ্লব কুমার বিশ্বাস বলেন, এ মামলার এজাহারভূক্ত আসামী রফিকুল ইসলাম ওরফে আন্ডা মেম্বারকে গ্রেফতার করে আদালতে সোর্পদ করা হয়েছে। বাকী আসামীদেরকে গ্রেফতারের অভিযান অব্যাহত আছে।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *