মিরু হাসান বাপ্পী
বগুড়া প্রতিনিধি:

পাকশী বিভাগের ভুসম্পত্তি কর্মকর্তা মো. নুরুজ্জামান নির্দেশে বগুড়ার আদমদীঘি উপজেলার সান্তাহার পৌর শহরের বৃহৎ ধর্মীয় প্রতিষ্ঠান সান্তাহার দারুল উলুম মাদ্রাসা সিলগালা করার ২৩ ঘন্টা পর তালা খুলে দেওয়া হয়েছে। সোমবার দুপুরে সান্তাহার রেলওয়ে নিরাপত্তা বাহিনীর পরিদর্শক (ইন্সপেক্টর) নূর-এ নবীর মাধ্যমে এই তালা খুলে দেওয়া হয়েছে।

জানা গেছে, রোববার দুপুরে মাদ্রাসার মূল ফটকে তালা ঝুলিয়ে সিলগালা করে দেন। এ সময় রেল মন্ত্রনালয়ের উপ-সচীব সাইদুর রশিদ উপস্থিত ছিলেন। এ ঘটনা জানাজানি হওয়ার পর শহরের মানুষের মাঝে উত্তেজনা বিরাজ করছিল এবং সেই প্রেক্ষিতে ঘটনাস্থলে অতিরিক্ত পুলিশ মোতায়েন কার হয়েছিল।

সোমবার সকালে সিলগালা খোলার বিষয়টি নিয়ে মাদ্রাসা কমিটি পরিচালনা কমিটির সাধারন সম্পাদক আহম্মেদ আলী স্বপন, সান্তাহার পৌরসভার মেয়র তোফাজ্জল হোসেন ভুট্টু, আওয়ামীলীগের নেতা সাজেদুল ইসলাম চম্পা, আশরাফুল ইসলাম মন্টু, চিকিৎসক হামিদুর রহমান রানা এবং মাদ্রাসার মুহাতামিম মাওলানা মাহাবুবুল হোসেন ও শিক্ষকবৃন্দ উপ-সচীব সাইদুর রশিদের ও স্থানীয় নেতারা আলোচনার মাধ্যমে সমস্যার সমাধান অন্তে সিলগালা খুলে দেওয়া হয়।

এ ব্যাপারে ভুসম্পত্তি কর্মকর্তা মো. নুরুজ্জামানের সাথে মুঠোফোনে বলেন, মাদ্রাসার ৩ তলা ভবনের নির্মাণ কাজ বন্ধ রাখার শর্তে সিলগালা তালা খুলে দেওয়া হয়েছে।

Leave a Reply