অনলাইন ডেক্সঃ
নোয়াখালীর সোনাইমুড়ীর বাগপাচরা গ্রামে তৃতীয় শ্রেণির ছাত্রীকে (১০)  হাত ও পা বেঁধে ধর্ষণের চেষ্টার অভিযোগে তাজবীর (১৮) নামে এক কিশোরকে গ্রেফতার করেছে পুলিশ। শনিবার সকাল ১০টায় উপজেলার বাগপাচরা গ্রামে এ ঘটনা ঘটে।

শনিবার দুপুরে পুলিশ এ খবর পেয়ে ধর্ষণ চেষ্টাকারী এলাকার মৌলভীবাড়ির মেছের আলীর ছেলে তাজবীরকে গ্রেফতার করে। তাজবীরের বিরুদ্ধে আরও কয়েকটি মামলা রয়েছে বলে জানা গেছে।

ভুক্তভোগী ভিকটিম স্থানীয় নুরানী মাদ্রাসার তৃতীয় শ্রেণির ছাত্রী। তার বাবা একজন রাজমিস্ত্রি এবং তাদের বাড়ি রাজশাহী জেলায়।

এলাকাবাসী জানান, ভুক্তভোগী ছাত্রী বাবা ও মাসহ ওই এলাকায় দীর্ঘদিন থেকে বসবাস করে আসছে। ছাত্রীর বাবা এলাকায় বিভিন্ন স্থানে রাজমিস্ত্রির কাজ করে জীবিকা নির্বাহ করেন। শনিবার সকাল ১০টায় বখাটে কিশোর তাজবীর ওই কিশোরীকে একা পেয়ে পার্শ্ববর্তী বাগানে নিয়ে হাত ও পা বেঁধে ধর্ষণের চেষ্টা করে। তার চিৎকারে এলাকাবাসী এগিয়ে আসলে বখাটে কিশোর পালিয়ে যায়।

এলাকাবাসী জানান, অভিযুক্ত কিশোর ওই এলাকার একটি কিশোর গ্যাংয়ের সেকেন্ড-ইন কমান্ড। তার বিরুদ্ধে অসামাজিক কাজে লিপ্তসহ নানা অপকর্মের অভিযোগ করেছেন এলাকাবাসী। 

সোনাইমুড়ী থানার ওসি গিয়াস উদ্দিন জানান, ধর্ষণচেষ্টার অভিযোগে তাজবীরকে গ্রেফতার করা হয়েছে।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *